শিরোনাম

Monthly Archives: অক্টোবর ২০১৭

যুক্তরাজ্যে বসবাসরত ইনাতগঞ্জ উচ্চ বিদ্যালয়ের সাবেক ছাত্রছাত্রীদের পুনর্মিলনী ২৩ অক্টোবর

সংবাদ রিপোর্ট: যুক্তরাজ্যে বসবাসরত হবিগঞ্জ জেলার নবীগঞ্জ উপজেলার ঐতিহ্যবাহী ইনাতগঞ্জ উচ্চ বিদ্যালয়ের সাবেক ছাত্রছাত্রীদের উদ্যোগে বার্মিংহামের ইকবাল 7b2a2065-7158-4324-852e-66e627b61a9cব্যাংকুয়েটিং হলে আগামি ২৩ অক্টোবNewcastleর সোমবার এক পুনর্মিলনীর আয়োজন করা হয়েছে। যুক্তরাজ্যের বিভিন্ন শহরে বসবাসরত ইনাতগঞ্জ উচ্চ বিদ্যালয়ের সাবেক শিক্ষার্থীদের পাশাপাশি অত্র এলাকার সর্ব স্তরের মানুষকে উক্ত অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকার জন্য সাবেক শিক্ষার্থীদের পক্ষ থেকে আহ্বান জানানো হয়েছে।

যুক্তরাজ্যে প্রথমবারের মতো অনুষ্ঠিতব্য এই পুনর্মিলনী সভাকে সাফল্যমণ্ডিত করার লক্ষে বার্মিংহাম, লন্ডন, নিউক্যাসল, লুটন, কার্ডিফসহ বিভিন্ন শহরে সাবেক শিক্ষার্থী, স্কুলের দাতাগণ, অভিভাবকমণ্ডলী ও শুভাকাঙ্খিদের সমন্বয়ে কয়েকটি প্রস্তুতি সভা অনুুষ্ঠত হয়। এতে সাবেক শিক্ষার্থীসহ ইনাতগঞ্জ এলাকার ব্যাপকসংখ্যক লোক সমাগমের আশা করা যাচ্ছে।

বিসিএ ইস্ট ইংল্যান্ড রিজিওন-১ এর প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হওয়ায় সাইফুল আলমকে সংবর্ধনা প্রদান

হার্টফোর্ডশায়ার, ১৯ অক্টোবর: যুক্তরাজ্যস্থ বাংলাদেশ ক্যাটারার্স এসোসিয়েশন-বিসিএ’র ইস্ট ইংল্যান্ড রিজিওন-১ এর প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হওয়ায় সাইফুল আলমকে সংবর্ধনা প্রদান করেছেন যুক্তরাজ্যে বসবাসকারী ইনাতগঞ্জ ইউনিয়নবাসী।5fa81796-a918-4fcc-963b-db5801a227db

সংবর্ধনা উপলক্ষে গত ১৭ অক্টোবর সোমবার হার্টফোর্ডশায়ারের স্থানীয় একটি রেস্টুরেন্ট এক সভার আয়োজন করা হয়।

সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে লন্ডন, বার্মিংহাম, লুটনসহ বিভিন্ন শহরে বসবাসরত ইনাতগঞ্জ ইউনিয়নের সামাজিক, রাজনৈকিত ব্যক্তিবর্গ এবং লন্ডনে কর্মরত বিভিন্ন মিডিয়ার কর্মীগণ উপস্থিত ছিলেন।61fb4446-bd54-44c6-b3bd-6fa8a6b92878

অনুষ্ঠানে সাইফুল আলমকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানান বিশিষ্ট কমিউনিটি ব্যক্তিত্ব ইয়াওর উদ্দিন। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন তাহের আহমদ, খালেদ আহমদ, মোঃ সিরাজ উদ্দিন, ইনাতগঞ্জ ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান মোঃ আব্দুল বাতেন, সদ্য সমাপ্ত ইনাতগঞ্জ ইউপি নির্বাচনের অন্যতম প্রতিদ্বন্ধী ছায়েদ আহমদ জায়দুল, ফিরুজ উদ্দিন, আজমল হোসাইন, মোঃ আব্দুস সোবহান, জাফর আহমদ আজিজ, দেলোয়ার হোসাইন দীপু, মুহিবুর রহমান, তারেক আহমদ, মোহাম্মদ গোলাম কিবরিয়া, জুবায়ের চৌধুরী, আব্দুল হালিম, মোঃ আব্দুল কাইয়ুম, রিপন আহমদ প্রমুখ।c9962ce6-8e6d-4030-a226-de0cd2c7e771

সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে সাইফুল আলমের বর্ণাঢ্য কর্মজীবনের ভূয়সী প্রশংসা করে তাঁর উজ্জল ভবিষ্যৎ কামনা করা হয়।

অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ও জাতির জনকের আদর্শ প্রতিষ্টাই আমাদের লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য

লন্ডনঃ অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ও জাতির জনকের আদর্শকে নবপ্রজন্ম সহ বিশ্ববাসীর কাছে তুলে ধরার লক্ষ্যে ২০১৫ সালে বৃটেনে মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বিশ্বাসীদের নিয়ে গঠিত হয় ‘‘বঙ্গবন্ধু লেখক সাংবাদিক ফোরাম’’ ইউকে। জন্মলগ্ন থেকে সংগঠনটি জাতির জনকের আদর্শ বাস্তবায়নে কাজ করে যাচ্ছে, সোনার তরী এর নতুন সংযোজন। বঙ্গবন্ধু লেখক সাংবাদিক ফোরাম গ্রেটার লন্ডন শাখা ও সোনার তরী শিল্পি গোষ্টীর পরিচিতি সভায় বক্তারা এ অভিমত ব্যক্ত করেন। বক্তারা বলেন এই সংগঠনটি কোন রাজনৈতিক বা কারো অঙ্গসংগঠন নয়, আমাদের লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য জাতির জনকের আদর্শ বাস্তবায়ন। ইতিমধ্যেই সংগঠনটি ব্যতিক্রমী কয়েকটি প্রকাশনার মাধ্যমে সকল মহলের দৃষ্টি কুড়াতে সক্ষম হয়েছে। উল্লেখযোগ্য প্রকাশনার মধ্যে রয়েছে ‘‘বঙ্গবন্ধুর দি¦তীয় বিপ্লব’’, ‘‘মুজিব মানেই মুক্তি’’, ‘‘সফল রাজনীতিক এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা’’, ‘‘কবিতায় মুক্তিযুদ্ধ’’, ‘‘শেখ মুবিবের রেনু’’, ‘‘একা একজন যুদ্ধ কিন্তু শত সেক্টরে’’ ও ‘‘যুদ্ধজয়ের গল্প’’। বঙ্গবন্ধু লেখক সাংবাদিক ফোরামের সাথে যুক্ত রয়েছেন লেখক সাংবাদিক শিল্পি এবং সাহিত্যিকরা। ১৯৭১ কেউ অস্ত্র হাতে যুদ্ধ করেছেন, কেউ কলম দিয়ে আর কেউবা গান গেয়ে মুক্তিযুদ্ধ করেছেন। আমরাও সেই একাত্তরের মত ্ঐক্যবদ্ধ ভাবে জাতির জনকের আদর্শকে বুকে ধারন করে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়তে কাজ করছি। গতকাল ১৭ অক্টোবর বিকেলে ইষ্টলন্ডনের স্বাদ রেষ্টুরেন্টে সংগঠনের গ্রেটার লন্ডন শাখার সভাপতি বাতিরুল হক সর্দারের সভাপতিত্বে ও সেক্রেটারী শাহ মোস্তাফিজুর রহমান বেলালের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত পরিচিতি সভায় অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ঘাতক-দালাল নির্মুল কমিটির কেন্দ্রীয় সদস্য ও বঙ্গবন্ধু লেখক সাংবাদিক ফোরামের কেন্দ্রীয় সহসভাপতি সাংবাদিক আনসার আহমেদ উল্লাহ, বঙ্গ লেখক সাংবাদিক ফোরামের কেন্ত্রীয় সহসভাপতি সাংবাদিক মতিয়ার চৌধুরী, কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্মসম্পাদক তওহিদ ফিতরাত হোসেন, কেন্দ্রীয় যুগ্মসম্পাদক জামাল খান, কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্মসম্পাদক সাজিয়া ¯িœগ্ধা। সভায় বক্তব্য রাখেন গ্রেটার লন্ডন কমিটির সহসভাপতি সৈয়দ সাইফ হেলাল, সহসভাপতি নূরুন্নবী, সহসভাপতি সিলভী ইকবাল, সাংস্কৃতিক সম্পাদক শাহিন নাহার লীনা, জনসংযোগ সম্পাদক মাহমুদা খানম মনি, প্রচার সম্পাদক সাংবাদিক আব্দুর রশিদ, সদস্য আফতাব হোসেন বাবলু, হাজী মোহাম্মদ আনহার মিয়া, সোনার তরী শিল্পিগোষ্ঠীর আহবায়ক শর্মিলা দাশ, যুগ্ম আহবায়ক রুমি হক, সদস্য সচিব অবিনাশ রায়, সদস্য উর্মি ধর ও মোহাম্মদ মনি প্রমুখ। অতিথিদের সাথে নিয়ে উভয় সংগঠনের সদস্যদের পরিচয় করিয়ে দেন বঙ্গবন্ধু লেখক সাংবাদিক ফোরাম গ্রেটার লন্ডন শাখার সভপতি বাতিরুল হক সর্দার ও সোনার তরী শিল্পিগোষ্ঠীর আহবায়ক শর্মিলা দাস।

লন্ডনে হবিগঞ্জ স্পোর্টস ট্রাস্ট ইউকের যাত্রা শুরু

লন্ডনঃ হবিগঞ্জের ক্রীড়া ক্ষেত্রে উন্নয়নের লক্ষ্যে বৃটেনে বসবাসরত হবিগঞ্জবাসীর উদ্যোগে হবিগঞ্জ স্পোর্টস ট্রাস্ট ইউকে নামে একটি ট্রাষ্টের যাত্রা শুরু হয়েছে লন্ডনে। গেল ১৬ই অক্টোবর সোমবার, বিকেলে লন্ডনে বসবাসরত হবিগঞ্জের সাবেক ক্রীড়াবিদ ও ক্রীড়াসংগঠকদের নিয়ে ‘হবিগঞ্জের ক্রীড়া ক্ষেত্রের সমস্যা ও সম্ভবনা এবং প্রবাসীদের করণীয় বিষয়ক’ এক আলোচনা সভা পূর্ব লন্ডনের একটি রেস্তরাঁয় অনুষ্ঠিত হয়।
ক্রীড়াসংগঠক ও হবিগঞ্জ মর্ডান ক্লাবের সাবেক সভাপতি চৌধুরী ফয়জুর রহমান মোস্তাক এডভোকেটের সভাপতিত্বে ও শামসুল ইসলাম মঞ্জুর সঞ্চালায় অনুষ্টিত আলোচনা সভায় ক্রীড়া ক্ষেত্রে প্রবাসীদের করণীয় বিষয়ক মূল বক্তব্য উপস্থাপন করেন হবিগঞ্জ ফাউন্ডেশন ইউকের সভাপতি দেওয়ান সৈয়দ রব মুর্শেদ। মূল বক্তব্যের উপর আলোচনায় অংশগ্রহণ করেন কমিউনিটি ব্যক্তিত্ব শামসুল ইসলাম মঞ্জু, সাবেক ক্রীড়াবিদ ও ইয়ুথ এসোসিয়েশন অফ হবিগঞ্জ এর সভাপতি চৌধুরী নিয়াজ নিঙ্কন, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী আমল খান, সাবেক ক্রীড়াবিদ গৌরব রায় মিঠুন, বৃন্দাবন গভঃ কলেজ এক্স স্টুডেন্ট এসোসিয়েশন ইউকের সাধারণ সম্পাদক খাইর জামান জাহাঙ্গীর, সাবেক ক্রীড়াবিদ বিপ্লব পাল ও সাবেক ক্রীড়াবিদ শাহ রাসেলপ্রমুখ।
বক্তারা হবিগঞ্জের ক্রীড়া ক্ষেত্রে উন্নয়নের বিভিন্ন দিক উপস্থাপন করেন এবং প্রবাসীদের সম্পৃক্ত করার লক্ষ্যে একটি নতুন সংঘটনের মাধ্যমে কাজ করার আহব্বান জানান। সভায় উপস্থিত সকলের মতামতের ভিত্তিতে ও সর্বসম্মতিক্রমে এই নতুন সংঘটনের নাম করন করা হয় ‘হবিগঞ্জ স্পোর্টস ট্রাস্ট ইউকে’ । এবং সাবেক ক্রীড়াবিদ বাকি বিল্লাহ জালালকে আহবায়ক করে পনেরো সদস্য বিশিষ্ট আহবায়ক কমিটি ঘোষণা করা হয়। আহবায়ক কমিটির অন্যান্য সদস্যরা হলেন: চৌধুরী নিয়াজ নিঙ্কন, নজমুদ্দীন তালুকদার মিঠু, ইমরানুল বর চৌধুরী উজ্জ্বল, সৈয়দ আশফাকুল রহমান ফারহান, গৌরব রায় মিথুন, বিপ্লব পাল, খাইর জামান জাহাঙ্গীর, আদিত্য সাদি, দেওয়ান সৈয়দ রব মুর্শেদ, মোঃ আলামিন মিয়া, শাহ রাসেল, সুলতান মাহমুদ কয়েস, আল-মনসুর সোহাগ ও এনাম আহমেদ খান সজীব। উক্ত আহবায়ক কমিটি বিলেত প্রবাসী হবিগঞ্জবাসীদেরদের সংঘটিত করার উদ্যোগ নিবে এবং শীগ্রই পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠনের সকল কার্যক্রম গ্রহণ করবে। সভায় অন্যান্যের মধ্যে আরো উপস্থিত ছিলেন: মোজাম্মেল হক শাহজাহান, আবুল আজিজ, মামুন রশিদ, বাবলু আহমেদ, এনামুল হক জুবায়ের, শাহজাহান কবির, সৈয়দ মারুফ, মাহমুদ বশির, আলাল আহমেদ, এমরান আহমেদ, সালেক আহমেদ, লিলু আহমেদ প্রমুখ।

অনিয়মের অভিযোগে চ্যারিটি সংগঠন ইনসান এইডের বাংলাদেশ প্রতিনিধি খালেদ আহমদকে অব্যাহতি

লন্ডনঃ যুক্তরাজ্য ভিত্তিক চ্যারিটি সংগঠন ‘‘ইনসান এইড’’ এর বাংলাদেশ প্রতিনিধি খালেদ আহমদকে অস্বচ্ছতা এবং সংগঠনের জমিজমা সংক্রান্ত বিভিন্ন অনিয়মের কারনে সকল দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি দিয়েছে ‘‘ইনসান এইড ইউকে’’। চ্যারিটি সংগঠন ইনসান এইডের চেয়ার ও খালেদ আহমদের ভাই হাফেজ মৌলানা ইউসুফ সালেহ আমাদের প্রতিনিধিকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। এর আগে ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৭ সালে সংগঠনের ট্রাষ্ট্রি বোর্ডের সিদ্ধান্ত মোতাবেক খালেদ আহমকে সকল দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি দেয়া হয়। তাৎক্ষনিক ভাবে ‘‘ইনসান এইডের’’ ট্রেজারার মোহাম্মদ মিয়া সাক্ষরিত পত্রে ও টেলিফোন মারফত খালেদ আহমদকে অব্যাহতির কথা জানিয়ে দেয়া হয়, এতে বলা হয়, খালেদ আহমদের কাছে রক্ষিত ব্যাংক একাউন্ট ও সকল কাগজপত্র বাংলাদেশে সংগঠনের নিয়োগকৃত উকিল স্বজল বাবুর কাছে সমজিয়ে দিতে, তিনি এখনও তা সমজিয়ে দেননি। আজাদ ভিলা নূরানি ৪২/৪এ বনকলা পাড়া সুবিদবাজার সিলেটের বর্তমান বাসিন্ধা ও কায়েস্ত গ্রাম ডাকঘর বড়দেশ কানাইঘটের স্থায়ী অধিবাসী খালেদ আহমদের সাথে ‘‘ ইনসান এইডের’’ কোন সম্পর্ক নেই এবং তার সাথে কেউ কোন ধরনের লেনদেন না করার জন্যে ইনসান এইড ইউকে জানিয়েছে। এখানে উল্লেখ্য যে ২০১৫ সালে ‘‘ইনসান এইড’’ বৈধভাবে বাংলাদেশে চ্যারিটি কার্য্যক্রম পরিচালনার জন্যে এনজিও ব্যুরোতে মিঃ খালেদ আহমদকে সংগঠনের বাংলাদেশ প্রতিনিধি উল্লেখ করে করে এবং ঠিকানা শাহ কামাল মার্কেট, গোয়ালাবাজার ওসমানী নগর সিলেট দেখিয়ে আবদেন করে। এখনও তাদের আবেদনটি ঝুলে রয়েছে যদিও সংগঠনটি বাংলাদেশে এনজিও ব্যুরোতে রেজিষ্টিভূক্ত নয় তার পরে সংগঠনটি এই খালেদ আহমদকে ২০০০৮ সাল থেকে মাসিক ১৫হাজার টাকা বেতনে কর্মচারী নিয়োগ করে তারে কার্য্যক্রম চালিয়ে আসছে।insaan aid
এখানে উল্লেখ্য সিলেট শহরতলীর শাহ পরান এলাকায় বহর মৌজায় ইনসান এইডের ট্রাষ্ট্রি যুক্তরাজ্য প্রবাসী মকবুল খান ২০১৫সালের ফেব্রুয়ারী মাসে ৫৫শতক জমি দান করেন, তখন তার বাজার মূল্য ধরা হয় ৫৫লক্ষ ৭০ হাজার টাকা। এই জমি ইনসান এইডের নামে রিজিষ্টি করার কথা থাকলেও দলিল রিজিষ্ট্রির সময় খালেদ আহমদ লিখিয়ে নেন ইনসান এইডের পক্ষে পরিচালক খালেদ আহমদ, বিষযটি ট্রাষ্ট্রি বোর্ডের নজরে আসলে তা সংশোধন করে দেওয়ার জন্যে খালেদ আহমদকে বলা হলে তিনি নানান টালবাহনা শুরু করেন, দিচ্ছি দেব বলে সময় ক্ষেপন করতে থাকেন ছাড়া তার হিসেবেও গরমিল থাকায় সংগঠন তাকে দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি দেয়। খালেদ আহমদের ভাই ইনসান এইডের চেয়ার হাফেজ মৌলানা ইউসুফ সালেহ ও ট্রাষ্ট্রি বৃন্দ জানান খালেদ আহমদ এই সংগঠনের পরিচালক কোন দিনই ছিলেননা তাকে সংগঠনটি মাসিক ১৫ হাজার টাকা বেতনে কর্মচারী হিসেবে নিয়োগ করে। তার অনিয়ম এবং অসহযোগীতার কারনে তাকে দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি দেয়া হয়।

২১ ২২ ও ২৩ অক্টোবর সিলেটে অনুষ্ঠিত হচ্ছে তিনদিন ব্যাপী এনআরবি বিজনেন্স কনভেনশন

মতিয়ার চৌধুরীঃ ্ব্রিটিশ বাংলাদেশ চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ড্রাষ্টির (বিবিসিসিআই) উদ্যোগে এবং সিলেট চেম্বারের সহযোগীতায় প্রথম বারেরমত সিলেটে অনুষ্ঠিত হচ্ছে তিন দিনব্যাপী এনআরবি (অনাবাসী বাংলাদেশী) বিজনেন্স কনভেনশন ২০১৭। এই অনুষ্টানকে ঘিরে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে বসবাসরত অনাবাসী বাংলাদেশীদের মধ্যে বইছে আনন্দের বন্যা। কনভেশনকে সফল করতে সিলেটে চলছে নানা প্রস্তুতি। ২১,২২ ও ২৩ অক্টোবর আবুল মাল আব্দুল মুহিত ক্রীড়া কমপ্লেক্সে অনুষ্ঠিতব্য এই কনভেনশনকে সফল করতে বিশ্বের বিভিন্ন দেশ থেকে অনেক প্রবাসী এখন বাংলাদেশে অবস্থান করছেন। কনভেনশনের মূল উদ্যোক্তা বিবিসিসিআই প্রেসিডেন্ট ও ব্রিটিশ কারি এওয়ার্ডের প্রবর্তক আন্তর্জাতিক ইভেন্ট মাষ্টার এনাম আলী এমবিই সিলেটে অবস্থান করে এর সবদিক তদারকি করছেন। মধ্যপ্রাচ্য, আমেরিকা, ইউরোপ ও অষ্ট্রেলিয়া সহ বিশ্বের ৩০টি দেশের এনআরবি প্রতিনিধিরা নিজ নিজ দেশের পক্ষে কনভেনশনে পতাকা উত্তোলন করবেন বলে জানিয়েছেন বিবিসিসিআই লন্ডন রিজিওনের প্রেসিডেন্ট বশির আহমদ। এই কনভেনশনে প্রবাসী বাংলাদেশীদের দেশে বিনিয়োগ সমস্যা, সম্ভাবনা ও সাফল্যকে দেশবাসীর সামনে তুলে ধরা হবে। এই কনভেনশনে নতুন বাংলাদেশ গঠনে প্রবাসীদের সম্ভাবনাকে কাজে লাগাতে বিবিসিসিআই প্রস্তাবিত বছরের একটি দিনকে এনআরবি ডে ঘোষনার দাবী উত্থাপন করা হবে দেশবাসী ও সরকারের কাছে। এখানে উল্লেখ্য যে, গেল কয়েক বছর যাবত বিবিসিসিআই‘র নেতৃত্বে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে বসবাসরত প্রবাসীরা বছররের যেকোন একটি দিনকে এনআরবি ডে হিসেবে ঘোষানার দাবী জানিয়ে আসছেন। দেশে অবস্থানরত বা বিশ্বের যেকোন প্রান্থ থেকে প্রবাসীরা রেজিষ্টেশনের মাধ্যমে কনভেনশনে যোগ দিতে পারবেন। এব্যাপারে বিস্তারিত জানতে (০০৪৪) ০৭৯৪৭ ৯৮৫৬১৮ নাম্বারে যোগাযোগ করলে সব তথ্য পাওয়া যাবে, যুক্তরাজ্য প্রবাসী সাংবাদিক ও ব্যবসায়ী নেতা শফিকুল ইসলাম বিবিসিসিআই‘র পক্ষ থেকে কনভেনশনকে সফল করতে সকলের সহযোগীতা কামনা করেছেন।

নবীগঞ্জে দেবোত্তর সম্পত্তির জমি দখলে বাধা দেওয়ায় ভুমিখেকো লেবু মিয়া গংদের হামলায় মন্দিরের সেবায়েত রতœা রানী দেবকে আহত

উত্তম কুমার পাল হিমেল,নবীগঞ্জ প্রতিনিধিঃ নবীগঞ্জে দেবোত্তর সম্পত্তির জমি দখলে বাধা দেওয়ায় ভুমিখেকো লেবু মিয়া গংরা মন্দিরের সেবায়েত রতœা রানী দেবকে মারপিট করে গুরুতর আহত করে । গুরুতর আহত অবস্থায় রতœা রানীকে নবীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। এ ব্যাপারে নবীগঞ্জ থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।
অভিযোগ সুত্রে জানাযায়,নবীগঞ্জ উপজেলা দিগলবাক ইউনিয়নের বোয়ালজুর কালী মন্দিরের ভুমি জোর পূর্বক দকল করার জন্য একই গ্রামের লেবু মিয়া,লেচু মিয়া,শামীম মিয়া,মনি মিয়া গংরা চেষ্টা করে আসছে। এ নিয়ে মন্দির পক্ষ এবং লেবু মিয়ার মধ্যে আদালতে মামলা চলমান রয়েছে। এরই জের ধরে গতকাল শুক্রবার দুপুরে মন্দিরের পাশে ধাণী জমি দখলের জন্য লেবু মিয়ার ভাই লেচু মিয়ার পুত্র জাহিদ মিয়া প্রস্তুতি নেয়। এ সময় মন্দিরের সেবায়েত রতœা রানী দেব বাধা দিলে জাহেদ মিয়া গংরা লাটিসোটা নিয়ে রতœাকে পিটিয়ে আহত করে। সাথে সাথে গুরুতর আহত অবস্থায় রতœাকে নবীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। এ ব্যাপারে রতœা রানী বাদী হয়ে লেবু মিয়া,লেচু মিয়া,শামীম মিয়া,মনি মিয়া,জাহিদ মিয়,কে আসামী করে নবীগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করেন। খবর পেয়ে বাংলাদেশ হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদ নবীগঞ্জ উপজেলা শাখার সভাপতি নারায়ন রায়,সাধারন সম্পাদক উত্তম কুমার পাল হিমেল,উপজেলা পুজা উদযাপন পরিষদের সাবেক সদস্য সচিব রঙ্গলাল রায়,ইউনিয়ন হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিস্টান ঐক্যপরিষদের সাবেক সভাপতি ডাঃ অমলেন্দু সুত্রধর,কালী মন্দির পরিচালনা কমিটির সভাপতি রানু সরকার,সাধারন সম্পাদক স্বপন সুত্রধরসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ হাসপাতালে গিয়ে আহতের চিকিৎসার খোজখবর নেন। এ ব্যাপারে উপজেলা হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদ সভাপতি নারায়ন রায়,সভপতি মন্ডলীর সদস্য কালীপদ ভট্টাচার্য্য,বাদল কৃষ্ণ বনিক,সাধারন সম্পাদক উত্তম কুমার পাল হিমেলসহ সংগঠনের নেতৃবৃন্দ ঘটনার সাথে জড়িতদের গ্রেপ্তার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির জন্য পুলিশ প্রশাসনের প্রতি আহবান জানান।

ফেঞ্চুগঞ্জ-দক্ষিনসুরমা সিলেট-৩ আসন থেকে নৌকার মাঝি হতে চান যুক্তরাজ্য আওয়ামীলীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য ব্যারিষ্টার মনির হোসেন

লন্ডনঃ ফেঞ্চুগঞ্জ-দক্ষিনসুরমা সিলেট-৩ আসন থেকে নৌকার মাঝি হতে চান যুক্তরাজ্য আওয়ামীলীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য ব্যারিষ্টার মনির হোসেন। বৃটেনে বসবাসরত সর্বস্থরের ফেঞ্চুগঞ্জ-দক্ষিনসুরমাবাসী আয়োজিত এক প্রেস ব্রিফিংয়ে তিনি তার এই আগ্রহের কথা জানান। তিনি বলেন জননেত্রী শেখ হাসিনার রুপকল্প বাস্তবায়নে আমি অংশিদার হতে চাই। মনির হোসেন তার দীর্ঘ সামাজিক এবং রাজনৈতিক জীবনের বিভিন্ন দিক তুলে ধরে বলেন সকলেই জানেন ‘‘ আমি মানুষের কল্যাণে কাজ করার আন্তরিক চেষ্টা করি। শিশু কাল থেকে লেখাপড়ার পাশাপাশি জাতির জনকের আদর্শের রাজনীতির সাথে সম্পৃক্ত। তারই ধারাবাহিকতায় সিলেট মদন মোহন কলেজ এবং ‘ল’ কলেজের ভিপি ছিলাম। বৃটেনে অভিবাসী হওয়ার পর বিভিন্ন সমাজ কর্মের পাশাপশি সক্রিয় ভাবে রাজনীতিতে সমপৃক্ত আছি। দীর্ঘ বিশ বছর বৃটেনে মেইনষ্ট্রীম স্কুলে শিক্ষকতা করেছি বর্তমানে একজন ব্যারিষ্টার হিসেবে কর্মরত আছি। বাংলাদেশ টিসার্স এ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি, গ্রেটার সিলেট কাউন্সিল ইউকের কেন্দ্রীয় সভাপতি এবং বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক সহ বিভিন্ন সংগঠনের নেতৃত্ব দেওয়ার সৌভাগ্য হয়েছে আমার। তিনি জানান বর্তমানে ডেভেলপমেন্ট কাউন্সিলের প্রতিষ্টাতা কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি, বঙ্গবন্ধু লেখক সাংবাদিক ফোরাম কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি ও সর্বইউরোপীয় বঙ্গবন্ধ পরিষদের সহসভাপতি ও যুক্তরাজ্য আওয়ামীলীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করে যাচ্ছেন।
monir H -1

Monir H-2 গত ১২অক্টোবর রাতে ইষ্টলন্ডনের স্বাদ রেষ্টুন্টে টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিলের সাবেক স্পীকার কাউন্সিলার খালিছ উদ্দিনের সঞ্চালনায় প্রেস ব্রিফিংকালে আরো উপস্থিত ছিলেন টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিলের সাবেক লিডার হেলাল আববাস, সাবেক ছাত্র নেতা হেলাল উদ্দিন, সাংবাদিক ফরহাদ চৌধুরী, আব্দুস সত্তার সহ তার ওই এলাকার বিপুল সংখ্যক মানুষ। সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন নেত্রী যাকেই নমিনেশন দেবে তার প্রতি আমার সমর্থন থাকবে। তিনি বলেন সিলেট তিন আসনের মানুষ পরিবর্তন চায়। আর এলাকাবাসীর জন্য কিছু করার ইচ্ছে থেকে প্রার্থী হতে চাই। আমার বিশ্বাস নেত্রী আমাকেই এই আসনে মনোনয়ন দেবেন। তিনি বলেন আপনারা দেখলে অবক হবেন সাড়া দেশে যখন উন্নয়নের জোয়ার বইছে দক্ষিন সুরমায় এর কোন চিহ্ন খুঁজে পাওয়া যায়না, যা হয়েছে সব ফেঞ্চুগঞ্জে। এছাড়া আমার বাবা বা পরিবারের কেউ স্বাধীনতা বিরোধী ছিলেননা কারও বাড়ী বা সম্পদ দখলের অভিযোগও আমাদের উপর নেই। এলাকার মানুষ পরিবর্তন চায় চায় এলাকার উন্নয়ন।

বার্মিংহাম লতিফিয়া ফুলতলী কমপ্লেক্সে ঈদে মিলাদুন্নবী (স:) উদযাপন উপলক্ষে মতবিনিময় সভা

বার্মিংহাম: আসছে আরবী মাস মাহে রবিউল আওয়াল। এ মাসে ধরাধামে আগমন করেন বিশ্বনবী হয়রত মুহাম্মদ (স:)। তাঁর আগমনের মাসে বিশ্বব্যাপি আশেকে রাসুল ও নবী প্রেমিকগণ পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী (স:) মাহফিলের আয়োজন করেন। এরই ধারাবাহিকতায় এ বছর যুক্তরাজ্যের বার্মিংহামে ঐতিহ্যবাহী লতিফিয়া ফুলতলী কমপ্লেক্সে পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী পালনের উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে।

Miladunnabiঈদে মিলাদুন্নবী (স:) উদযাপন উপলক্ষে গত ২ অক্টোবর দুপুরে ইভেন্ট ম্যানেজমেন্ট কমিটির আহ্বানে লতিফিয়া ফুলতলী কমপ্লেক্সে এক মতবিনিময় সভার আয়োজন করা হয়। স্যান্ডওয়েল কাউন্সিলের মেয়র আলহাজ আহমেদ উল হক এমবিই’র সভাপতিত্বে ও লতিফিয়া ফুলতলী কমপ্লেক্সের ইভেন্ট ম্যানেজমেন্ট কমিটির কো-অর্ডিনেটর মাওলানা রফিক আহমদের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত সভায় সর্বসম্মতিক্রমে লতিফিয়া ফুলতলী কমপ্লেক্সে ‘শানে মুস্তফা সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম মহা সম্মেলন’ এর পালনের উদ্যোগ ও কমপ্লেক্সের ফাউন্ডার মেম্বার ও লাইফ মেম্বারদের সার্টিফিকেট প্রদানের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়। মহা সম্মেলনকে বাস্তবায়ন করার লক্ষে সভায় বিভিন্ন কর্মসূচিও গ্রহণ করা হয়।
মতবিনিময় সভায় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন লতিফিয়া ফুলতলী কমপ্লেক্সের চেয়ারম্যান প্রিন্সিপাল মাওলানা এম এ কাদির আল হাসান, ফাউন্ডার মেম্বার ও বিশিষ্ট ব্যবসায়ী আলহাজ মাহবুবুর রহমান চৌধুরী, ভাইস চেয়ারম্যান আলহাজ কাজী আংগুর মিয়া, ওয়ালছাল সুন্নী জামে মসজিদের খতিব মাওলানা নোমান আহমদ, আলমরক গাউছিয়া জামে মসজিদের খতিব মাওলানা আতিকুর রহমান, এলএফসি’র সেক্রেটারি মোঃ মিসবাউর রহমান, জয়েন্ট সেক্রেটারি মোঃ খুরশিদ উল হক ও মোঃ আব্দুল হাই, ক্যাশিয়ার আমিরুল ইসলাম জামাল, কমিউনিটি নেতা আলহাজ গৌছ আহমদ, লজেলস বাংলাদেশ ইসলামিক সেন্টার এন্ড জামে মসজিদের খতিব মাওলানা হুসাম উদ্দিন আল হুমায়দী, মাওলানা বদরুল হক খান, মাওলানা গুলজার আহমদ, মাওলানা আব্দুল মুনিম, মাওলানা এহসানুল হক, হাজী সাহিদ মিয়া, হাফিজ উসমান খান, হাজী সাহাব উদ্দিন, মোঃ সাইফুল আলম, ক্বারি মাহফুজুল হাসান খান, মোঃ আহমদ আলী, মোঃ সামির উদ্দিন, মাকন মিয়া, মজলু মিয়া, শমসের আলী, আরিফুল ইসলাম, মোঃ মতিউর রহমান, হাজী জয়নাল আবেদীন, সাদ উদ্দিন, মাসুম আহমদ, জাকওয়ান আহমদ গিলমান, সমুজ খান, হাফিজ আলী হোসাইন বাবুল, মোঃ ইসমাইল মিয়া, হাজী হাসন আলী হেলাল, মোহাম্মদ ক্বারী সাহিন আহমদ, সাহিদ আলী, মোঃ তাজুল ইসলাম, মোহাম্মদ ফারুক আলী রোফজান প্রমুখ।
পরিশেষে বিশেষ মুনাজাতে বিশ্ব মুসলিমের শান্তি ও সমৃদ্ধি কামনা করা হয়।

কমিউনিটিকে এগিয়ে নিতে হলে সাংগঠনিক উদ্যোগের বিকল্প নেই বিবিবিএফ এ্যাওয়ার্ড বিতরণী অনুষ্ঠানে বক্তারা

BBBF-1লুটন থেকে মোহাম্মদ মজনুঃ সমাজ অথবা যেকোন একটি কমিউনিটিকে এগিয়ে নিতে হলে রাষ্ট্রের পাশাপাশি সাংগঠনিক উদ্যোগের বিকল্প নেই, যার উৎকৃষ্ট প্রমাণ ব্রিটিশ বাংলাদেশী বিজনেন্স ফোরাম (বিবিবিএফ) ইউকে। বৃটেনের এ্যাথনিক বাংলাদেশী কমিউনিটির ব্যবসা বানিজ্য, শিক্ষা, প্রশিক্ষন ও সামাজিক উন্নয়নের লক্ষ্যে ইষ্ট অব ইংল্যান্ড রিজিওনে ২০০৮ সালে কয়েকজন উদ্যোমী মানুষের প্রচেষ্টায় যাত্রা শুরু করে ব্রিটিশ বাংলাদেশী বিজনেন্স ফোরাম (বিবিবিএফ) ইউকে। প্রতিষ্টার পর থেকে বহুমুখী কল্যাণকর কর্মকান্ডের মাধ্যমে সংগঠনটি সকল মহলের প্রশংসা কুড়াতে সক্ষম হয়। গেল ৯ অক্টোবর লুটনের ক্রিসেন্ট হলে বিবিবিএফ তৃতীয় ্এওয়ার্ড বিতরনী অনুষ্টানে বক্তারা এঅভিমত ব্যক্ত করেন। বক্তারা বলেন সংগঠনটির প্রতিষ্টাতাদের মধ্যে রেষ্টুরেনট, টেকওয়ে, গ্রোসারী ব্যবসী সহ শিক্ষাবিদ সটিসিটর ও একাউনটেন্টরা জড়িত রয়েছেন, সকলের সম্মিলিত প্রচেষ্টায় বিবিবিএফ আজ এপর্য্যায়ে এসেছে। দিন দিন এর যেমন সদস্য সংখ্যা বাড়ছে, বাড়ছে কাজের পরিধিও বর্তমানে সমগ্র বৃটেন জুড়ে ২০০০ হাজারেরও বেশী ব্যবসায়ী এর সাথে জড়িত রয়েছেন।BBBF-2
সংগঠনের প্রেসিডেন্ট ফয়সল আহমদ, সেক্রেটারী জেনারেল সেলিব্রেটি শেফ অলি খান, টেজারার শামসুল আলম মাখনের সার্বিক তত্বাবধানে ও জনপ্রীয় উপস্থাপক মিনারা মেঘনা উদ্দিনের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত এওয়ার্ড বিতরনী অনুষ্টানে অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন। ভিয়ন্ড ট্রেইলর- হাই শারীফ অব বেডফোর্ডশায়ার, লর্ড বিল ম্যাকেঞ্জি, বিসিএ প্রেসিডেন্ট মোহাম্মদ মোস্তফা কামাল ইয়াকুব, বিবিসিএ’র প্রেসিডেন্ট ইয়াফর আলী, বিবিসিএ’র সেক্রেটারী শাহানুর খান, বিসিএ’র চীফ ট্রেজারার সাইদুর রহমান বিপুল, রয়েল বারা অব উইন্ডসর কাউন্সিলের কাউন্সিলার শামসুল ইসলাম সেলিম, সিওয়াইসিডি’র এমডি বব বার্টন, কিংফিশার বিয়ারের সি-ই-ও ডামন সোয়াব্রিক, টিভি ওয়ানের এমডি গোলাম রসুল, কমিউনিটি নেতা আবুল হোসেন চৌধুরী, মলভ্যালী ডিষ্ট্রক কাউন্সিলের ডেপুটি চেয়ার কাউন্সিলার জাহাঙ্গির হক, বেন্ট কাউন্সিলের সাবেক মেয়র কাউন্সিলার পারভেজ আহমেদ, লুটন কাউন্সিলের সাবেক মেয়র কাউন্সিলার তাহির খান, কাউন্সিলার তারেক চৌধুরী, অবসর প্রাপ্ত শিক্ষক বারবারা ঘোষ, আশুক আহমদ এমবিই, শহীর উদ্দিন মিন্টু এলবিসি ও শাহরিয়ার আহমদ শুমন এলবিসি। অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন পন্সর কমিটির প্রধান এম আর চৌধুরী রুহুল, এওয়ার্ড কমিটির প্রধান ফিরোজুল হক. আপ্যায়ন কমিটির পক্ষে মালিক উদ্দিন, খলিলুর রহমান, ও ছুরুক মিয়া ও প্রকাশনা কমিটির প্রধান এবং সংগঠনের প্রেস এন্ড পাবলিসিটি সেক্রেটারী মোহাম্মদ মজনু প্রমুখ।
এবছর বিভিন্ন ক্ষেত্রে অবদানের জন্যে সংগঠনের পক্ষ থেকে মোট ২১টি এওয়ার্ড প্রদান করা হয়- এর মধ্যে ২০১৭ সালের জিসিএসই পরীক্ষায় উত্তীর্ন ১২ কৃতি শিক্ষার্থীকে এ্যাচিভমেন্ট এওয়ার্ড প্রদান করা হয় এওয়ার্ড প্রাপ্তরা হলোঃ-আমব্রিন খানম, আম্মারা আহমেদ, আনজুমান শাহ মোস্তফা, মাসুমা আক্তার, মোহাম্মদ চৌধুরী, মোহাম্মদ দিলওয়ার হোসাইন, মোহাম্দ নাভেল হোসাইন, রিজওয়ান তাছমিন উদ্দিন, শামীমা আক্তার ,মাহিসা জান্নাত, আনিসা হোসাইন, এবং সরকারী বৃত্তি নিয়ে ইটন কলেজে উচ্চশিক্ষার জন্যে চান্স পাওয়া কৃতি শিক্ষার্থী মোঃ আববিদুর রহমান। এছাড়া এলেভেল পরীক্ষায় উত্তীর্ণ কৃতি শিক্ষার্থী ,নুমা খানম এবং আল হিকমা স্কুলের তিন জন আলিমাকে এ্যাচিভমেন্ট এওয়ার্ড প্রদান করা হয় তারা হলেন, আবিদা খানম , মোসাম্মৎ তাছমিয়া মুসলেহা ,রহিমা চৌধুরী। অন্যান্য ক্ষেত্রে বিশেষ অবদান রাখায় এবছর যেসব ব্যাক্তি ও প্রতিষ্টানকে এওয়ার্ড প্রদান করা হয় তাদের মধ্যে বেষ্ট ট্রেভেল অব দ্য ইয়ার ‘‘এয়ার এক্সপেস লুটন ব্রাঞ্চ’’, বেষ্ট রেষ্টুরেন্ট অব দ্য ‘‘ইয়ার কারি গার্ডেন ডান্সটেবল’’, বেষ্ট টেকওয়ে অব দ্য ইয়ার ‘‘এইচ-বি কারি লুটন’’, বেষ্ট শেফ অব দ্য ইয়ার ‘‘মোহাম্মদ মোস্তফা বাফেলো গ্রীল লুটন’’ বেষ্ট হোলসেল অব দ্য ইয়ার এ-‘‘কে গ্রুপ লুটন’’। বিবিবিএফ আয়োজিত এওয়ার্ড অনুষ্টানকে সফল করতে এবছর যে সব প্রতিষ্টান পন্সর করেছে তারা হলোঃ- পিকল কোয়ালিটি সিডর, লায়ন লাগার, এয়ার এক্সপ্রেস টেভেল এজেন্সী, কাওছার এন্ড কোম্পেনী চার্টার একাউনটেন্ট, ট্রেনিং ফর ইউ, আ্যাপ ট্রেভেল নেট, সিম্পলী মুভ (লেটিং এজেন্সী), এ-ওয়ান ফ্রোজেন ফুড, এ-কে গ্রুপ হোলসেল ক্যাশ এন্ড কারি, এস এ এন্ড কোম্পেনী চার্টার একাউনটেন্ট, বেঙ্গল ফুড (ফ্রোজেন ফুড সাপ্লায়ার),লিটন লন্ড্রী, সামাদ ওয়ারজিস সার্ভিস । মিডিয়া পার্টনার টিভি-ওয়ান এবং চ্যারিটি পার্টনার হিসেবে লুটন ব্রিটিশ বাংলাদেশী হ্যাল্পিং হ্যান্ড এলবিবিএইচএইচ।

Scroll To Top

Design & Developed BY www.helalhostbd.net